স্মার্ট বাংলাদেশ স্মার্ট পুলিশ গঠনে কাজ করছে এপিবিএন।


জয় বাংলা নিউজ প্রকাশের সময় : ২৫/০২/২০২৪, ৫:৫৭ PM / ২৬
স্মার্ট বাংলাদেশ স্মার্ট পুলিশ গঠনে কাজ করছে এপিবিএন।

জয়বাংলা নিউজ ডেস্ক। 

দেশের যেকোন জয়গায় হারানো মোবাইল সংক্রান্ত যে কোন থানায় জিডি হোকনা কেনো তা উদ্ধারে সহায়তা করবে এপিবিএন।স্মার্ট বাংলাদেশ স্মার্ট পুলিশ গঠনে এপিবিএন ও বাংলাদেশ পুলিশ নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। এই সেবা সকলের জন্য উন্মুক্ত।

মুক্তাগাছা, ময়মনসিং এপিবিএন এর হেডকোয়ার্টার এবং রিয়ার হেডকোয়ার্টার সাইবার সেলটি মেঘলা বান্দরবানে রয়েছে।

এই দুইটি সেলের অধিনে ৬ টি সাইবার টিম কাজ করছে,এই সাইবার টিম গুলোর মাধ্যমে প্রতি মাসেই দেশের বিভিন্ন থানায় মামলা,মোবাইল ফাইনেন্সিয়াল সার্ভিস এর সমস্যা গুলো এপিবিএন এর হেডকোয়ার্টার এর ক্রিমিনাল এনালাইসিস শাখার মাধ্যমে তা উদ্ধারে কাজ করে।


দেশের বিভিন্ন জেলায় হারিয়ে যাওয়া ৪০ টি মোবাইল ও ভুলক্রমে মোবাইল ব্যাংকিং, প্রতারণার উদ্ধার হওয়া ৯ লাখ চুরানব্বই হাজার টাকা উদ্ধার পরবর্তী তা মূল মালিকের কাছে হস্তান্তরের সময় প্রেস ব্রিফিং কালে এসব কথা বলেন ২ আর্মড পুলিশ ব্যটালিয়ের ন(এপিবিএন) অধিনাক (অতিরিক্ত ডিআইজি) আলী আহমেদ খান।

রবিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে বান্দরবানের মেঘলা ২ এপিবিএন এর রিয়ার হেডকোয়ার্টারে সাইভার ক্রাইম সেল কর্তৃক হারিয়ে বা চুরি হওয়া মোবাইল ফোন,মোবাইল ব্যাংকিং এর টাকা উদ্ধার পরবর্তী প্রকৃত মালিকের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

এসময় এপিবিএন এর কার্যক্রমে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে দেশের বিভিন্ন জেলা হতে আশা সুবিধাভোগী জনসাধারণ।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ২ এপিবিএন, রিয়ার হেডকোয়ার্টার্স, মেঘলা, বান্দরবানের সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ আবদুল করিম, ক্যাম্প ইনচার্জ, মোঃ শওকত আলী, সাইবার ক্রাইম সেলের ইনচার্জ, এএসআই মোঃ আব্দুল গণি,ইন্টেলিজেন্স উইং বান্দরবান শাখার ইনচার্জ, এএসআই মোঃ রবিউল করিম সিকদার।

প্রসঙ্গত বান্দরবানে বিভিন্ন সময়ে নিষিদ্ধ মাদক আফিম সহ অন্নন্য মাদক উদ্ধার সহ অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারেও কাজ করছে ২ এপিবিএন।